Category Archives: মাসায়েল

আস্‌সালামু আলাইকুম ওয়া রাহমাতুল্লাহ,

দীর্ঘ অপেক্ষার পর আমরা উপস্থিত হয়েছি আপনাদের মাঝে ইসলামী আক্বিদা সাইটের “প্রশ্ন ও উত্তর” শীর্ষক পেইজ এর ইসলাম ধর্ম সংশ্লিষ্ট আমাদের দৈনন্দিন জীবনের নানাবিধ সমস্যার সমাধান ও কিছু মাসয়ালা নিয়ে। যা কিনা সম্পূর্ণ প্রশ্নোত্তর আঁকারে দেয়া হয়েছে।মূলত এই প্রশ্নগুলো বিভিন্ন শ্রেণির মানুষ কর্তৃক কৃত,আর সেই প্রশ্ন সমূহর কোরআন হাদীসের আলোকে বিশুদ্ধ উত্তর দিয়েছেন চৌদ্দশত শতাব্দীর মুজাদ্দীদ আ’লা হযরত মুজাদ্দীদে দ্বীন ওয়া মিল্লাত শায়খ ইমাম আহমদ রেযা রহমাতুল্লাহি আলাইহি।এ প্রশ্নোত্তর গুলো মূলত একটি কিতাবের সংশ্লিষ্ট,যার নাম “ইরফানে শরিয়াত”।এবং এই কিতাবটির বাংলা অনুবাদ করে আমাদের পরম কৃতার্থ করেছেন,উপমহাদেশের প্রখ্যাত আলেমে দ্বীন হযরতুল আল্লামা অধ্যক্ষ হাফেজ মুহাম্মদ আব্দুল জলীল রহমাতুল্লাহি আলাইহি।আমরা প্রতিটা প্রশ্নকে আপনাদের সুবিদার্থে নাম্বারিং করে সাজিয়েছি।সুতরাং আপনি নিজে জানুন,আর অন্য ভাই-বোনকে জানিয়ে সদকায়ে জারিয়ার অধিকারী হন।

************************************************************************

প্রশ্ন-১.  স্বামী মৃত স্ত্রীকে গোসল দিতে পারবে কি না এবং মৃত্যুর পর স্বামী তাঁর স্ত্রীর লাশ স্পর্শ করতে পারবে কি না?

জওয়াবঃ মৃত স্ত্রীর কাফনের উপর স্পর্শ করতে পারবে এবং কবরেও নামাতে পারবে। কিন্তু খালী শরীর স্পর্শ করতে পারবে না সুতরাং গোসলও দিতে পারবে না। আল্লাহ-ই সর্বজ্ঞ।

প্রশ্ন-২.  মৃত ব্যক্তির কুলখানীতে তৃতীয় দিনে পড়ার জন্য ছোলার পরিমান কত হওয়া বাঞ্ছনীয়? আর যদি শুকনো খেজুর হয়-তাহলে তার ওপর কত হওয়া উচিত?

জওয়াবঃ  শরিয়তে ছোলা বা খেজুরের কোন ওজন নির্ধারিত নেই। তবে ছোলা হলে সত্তর হাজার দানা হওয়া বাঞ্ছনীয়। আল্লাহ-ই সর্বজ্ঞ।

প্রশ্ন-৩.  কোন মহিলাকে তালাক দেওয়ার পর কতদিন পর সে দ্বিতীয় বিবাহ করতে পারবে?

জওয়াবঃ তালাক দেওয়ার পর হায়েয ওয়ালী মহিলা পূর্ণ তিনটি হায়েয অতিবাহিত হওয়ার পর বিবাহ করতে পারবে। আর মহিলা যদি হায়েযওয়ালী না হয়-তাহলে  তিনমাস পর। আর যদি গর্ভাবস্থায় তালাক হয়ে থাকে, তাহলে [বিস্তারিত]

 

Advertisements

সাদক্বায়ে জারিয়ার সাওয়াব পেতে শেয়ার করুন

রোযা রাখার উদ্দেশ্য

“প্রবন্ধটি পড়া হলে, শেয়ার করতে ভুলবেন না”

লিখেছেন,সৈয়দ গোলাম মোরশেদ

আত্মশুদ্ধির এক সুন্দর ও গঠনমূলক দিকনির্দেশনা সিয়াম সাধনার মধ্যে নিহিত। সায়েম অর্থাৎ রোজাদার কোন কোন বিষয়বস্তু থেকে বিরত থাকবে? আমরা জানি, রমজান মাসে সূর্যোদয় থেকে রাত পর্যন্ত পানাহার, শারীরিক সংসর্গ ইত্যাদি থেকে বিরত থাকার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। অথচ ওইসব বিষয়বস্তু মানুষের একান্ত প্রয়োজনীয়, যা পবিত্র ধর্মমতে কিছুতেই অবৈধ নয়। পবিত্র কুরআনে অনেক কর্মকে অবৈধ ঘোষণা করা হয়েছে এবং এগুলো থেকে সর্বাবস্থায় বিরত থাকার নির্দেশও দেওয়া হয়েছে। এমন ভাববার বিষয় হচ্ছে, বৈধ কিছু কর্মকে রমজান মাসে প্রতিদিন কিছু সময়ের জন্য অবৈধ ঘোষণা করা হলো কেন? এ সাময়িক বিরত থাকার মধ্যে Read the rest of this entry

নিছক রুকু সিজদার নাম নামায নয়

“প্রবন্ধটি পড়া হলে, শেয়ার করতে ভুলবেন না”

লিখেছেন,মুহাম্মদ তামীম রায়হান

সেদিন আমার পাশে বসে রাগ ঝাড়ছিলেন এক ভদ্রলোক। যাকে নিয়ে তার এত রাগ আর ক্ষোভ- তার কথা বলতে গিয়ে একপর্যায়ে তিনি আমাকে বললেন, এই লোক আবার নামাজও পড়ে, কী লাভ এই নামাজের যদি ব্যবহারই ঠিক না হয়।

সেদিন আমিও থমকে গিয়েছিলাম তার উক্তি শুনে। সত্যিই তো, আমরা কত মানুষকেই তো নামাজ পড়তে দেখি- কিন্তু ক’জন নামাজের দাবি মেনে জীবনের সর্বক্ষেত্রে তা মেনে চলি। অফিস আদালতে কত নামাযি ব্যক্তিই তো দায়িত্বে ফাঁকি দিচ্ছে, ব্যবসায়ী ওজনে কম দিচ্ছে, নামাযি কত মানুষ অহরহ মিথ্যা বলছে, অন্যকে ঠকাচ্ছে।

অথচ সৎভাবে জীবনযাপন, সত্য কথা বলা, অনাচার ও অসত্য থেকে বেঁচে থাকা- এসবই তো নামাজের দাবি। শুধু দাবিই নয়, আল্লাহ পাক তো বলেছেন, Read the rest of this entry

কঠোরতা কিংবা শিথিলতা নয়, চাই মধ্যমপন্থার অনুসরণ

“প্রবন্ধটি পড়া হলে, শেয়ার করতে ভুলবেন না”

লিখেছেন,তামীম রায়হান

মানুষের স্বভাব প্রকৃতিগতভাবেই দু’ ধরনের। কেউ সাহসী কেউ ভীতু। কেউ বেশি বোঝেন, কেউ কম বোঝেন। আমাদের চিরশত্রু শয়তান তাই প্রথমেই আমাদের মানসিক প্রকৃতির খোঁজ নিয়ে সেভাবেই আমাদেরকে ধোঁকা দিতে চায়।

আপনি হয়তো মন-মানসিকতায় সাধারণ মানের। আর আট/দশজনের মতোই আপনি ধর্মকে সহজভাবে ভালোবাসেন। আপনার এ অনুভূতিকে কাজে লাগিয়ে শয়তান আপনাকে প্ররোচিত করবে, ‘ইসলাম তো আপনি মানবেনই। কিন্তু ধীরে ধীরে, নিজেকে কষ্ট দিয়ে নয়। কি দরকার এতো তাড়াতাড়ির? আস্তে আস্তে অভ্যস্ত হবেন। যাক না কয়েকটা দিন।’

আপনিও নিজের অজান্তে এ ভাবনাকে সায় দিয়ে ধীরে ধীরে এক সময় দূরে সরে যাবেন। প্রথমে সুন্নত ছেড়ে দিয়ে, তারপর Read the rest of this entry

সাতটি চরিত্র মানুষকে ধ্বংস করে দেয়

“প্রবন্ধটি পড়া হলে, শেয়ার করতে ভুলবেন না”

লিখেছেন,মাওলানা মুহাম্মদ বখতিয়ার উদ্দীন

হযরত আবু হুরায়রা রাদিয়াল্লাহু আনহু হতে বর্ণিত, রাসূলে পাক সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামা এরশাদ করেন, ধ্বংসকারী সাতটি কাজ হতে তোমরা বিরত থাক। সাহাবীগণ আবেদন করলেন, ইয়া রাসূলুল্লাহ্! সেগুলো কি কি? নবী করীম সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামা এরশাদ করলেন,

১. মহান আল্লাহর সাথে শিরক করা অর্থাৎ,সত্তাগতভাবে কাউকে আল্লাহর সমকক্ষ মনে করা, ২.যাদু করা, ৩.অন্যায়ভাবে কাউকে হত্যা করা, তবে শরীয়ত মোতাবেক হত্যা ইসলামী শাসন ব্যবস্থার নিরিখে বৈধ, ৪.সুদ খাওয়া, ৫.ইয়াতিমের সম্পদ আত্মসাৎ করা, ৬.যুদ্ধের ময়দান থেকে পলায়ন করা, ৭.সতী-সাধ্বী ও উদাসীন মুসলিম নারীদের প্রতি ব্যভিচারের অপবাদ দেয়া। [বুখারী ও মুসলিম শরীফের সূত্রে মিশকাত শরীফ ১৭ পৃষ্ঠা]

প্রাসঙ্গিক আলোচনা

একজন মানুষের জন্যে তার দেহের অঙ্গ-প্রত্যঙ্গের পরিচর্যা ও Read the rest of this entry

ইসলাম-ই নারীদের শ্রেষ্ঠ হক্ব সংরক্ষনকারী

“প্রবন্ধটি পড়া হলে, শেয়ার করতে ভুলবেন না”

 

আওওয়ালু শাফিয়িন, আওওয়ালু মুশাফ্ফায়িন, আওওয়ালু মাঁইইয়ুর্হারিক হালক্বাল জান্নাতি হাবীবুল্লাহ হুযূর পুর নূর (সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামা) তথা একমাত্র ইসলামই মহিলাদের শ্রেষ্ঠ হক্ব সংরক্ষণকারী।মহান আল্লাহ পাক কুরআন এ পাকে বলেন,

يايها الناس انا خلقنكم من ذكر وانثى وجعلنكم شعوبا وقبائل لتعارفوا ان اكرمكم عند الله اتقكم

অর্থ: “হে মানবজাতি। নিশ্চয়ই আমি তোমাদেরকে একজন পুরুষ এবং একজন নারী থেকে সৃষ্টি করেছি এবং আমি তোমাদের বিভিন্ন জাতি ও গোত্রে গোত্রে বিভক্ত করেছি যাতে তোমরা একে অপরের পরিচয় লাভ করতে পার, নিশ্চয়ই তোমাদের মধ্যে আল্লাহ পাক এর নিকট ঐ ব্যক্তি  সবচেয়ে সম্মানিত  যে বেশি মুত্তাকী।” (সূরা হুজরাত : আয়াত ১৩)

ইসলামে মহিলাদের মর্যাদা ও সম্মান:

ইসলামে পুরুষ ও মহিলা তথা আদম সন্তানদের মর্যাদা ও সম্মান সম্পর্কে আল্লাহ পাক ইরশাদ করেন- Read the rest of this entry

“মিলাদ শরীফ ও ক্বিয়াম” স্থানঃ মসজিদে নববী,মদিনাতুল মুনাওয়ারা,সৌদি আরব।

“প্রবন্ধটি পড়া হলে, শেয়ার করতে ভুলবেন না”

আমাদের দেশে কিছু সংখ্যক মুসলিম ভাই বোন আছেন,যারা কিনা মিলাদ ও ক্বিয়ামের পক্ষের দলীলকে অস্বীকার তো করেনই।সাথে সাথে মিলাদ শরীফ ও ক্বিয়াম; ইসলামের পূণ্যভুমি মক্কা ও মদিনাতে অনুষ্ঠিত হয় না বলেও জোর প্রচার চালায়।সেই সব ভাই-বোন যারা কিনা ‘চিলে কান নিয়ে গেছে’ কথাটার সাদৃশ্যে মক্কা ও মদীনা শরীফেও মিলাদ হয়না কথাটা কারো কাছ থেকে শুনেই হই-হুল্লোড় বাধিয়ে ফেলেন।ঐ সব ভাই ও বোনসহ সকল ভাই বোনদের জন্য নিচে দেয়া আমাদের কাছে থাকা দুটি ভিডিও ক্লিপ।যা কিনা মদিনা শরীফে অবস্থিত মসজিদে নববীতে “ইয়া নবী সালাম আলাইকা,ইয়া রাসূল সালাম আলাইকা” বাক্যযোগে পঠিত ক্বিয়াম।আশা করি ভিডিও ক্লিপগুলো স্বচক্ষে দেখার পর আমাদের অনেক ভাই ও বোনদের অতীতের ভূল সংশোধন হবে।আল্লাহ তায়ালা আমাদের সবাইকে সঠিক পথে চলার তৌফিক দান করুক।(আমিন)

মাযহাবের ভিন্নতা কি ধর্মের বিভক্তি?

প্রবন্ধটি পড়া হলে, শেয়ার করতে ভুলবেন না”

লিখেছেন,মুহাম্মদ তামীম রায়হান

সম্পাদনায়,মুহাম্মদ মিজানুর রহমান।

হজ্ব থেকে ফেরার পর কোনো এক হাজী সাহেবকে জিজ্ঞেস করা হলো, মক্কায় কেমন দেখলেন? তিনি একটু ভাব নিয়ে বললেন, মক্কায় গিয়ে দেখি, খালি আযানটা দেয় বাংলায়, আর বাকি সবই কেমন যেন মনে হলো।

বেচারা হাজী সাহেব যে আযান সবসময় নিজের গ্রামে শোনেন, সে আযানই মক্কায় শুনতে পেয়ে ভাবলেন, এটা তো বাংলাদেশের বাংলা আযান। বাকি নামায অন্যান্য ইবাদত তো অন্যরকম- তাই এ নিয়ে তিনি সন্দিহান।

সাধারণত বাংলাদেশের কোনো মসজিদে যদি কেউ হানাফি ছাড়া অন্য মাযহাবের নিয়মে নামায পড়ে তবে সবাই হা করে Read the rest of this entry

হৃদয়সংলগ্ন তিরিশটি আমল

“প্রবন্ধটি পড়া হলে, শেয়ার করতে ভুলবেন না”

লিখেছেন,মুহাম্মদ আবুল কালাম আজাদ চৌধুরী

 ১- আল্লাহ তায়ালার ওপর ঈমান আনা
আল্লাহকে বিশ্বাস করা এবং আল্লাহর ওপর ঈমান আনার অর্থ শুধু আল্লাহ তায়ালার অস্তিত্ব স্বীকার করা নয়; বরং অস্তিত্বের প্রতি বিশ্বাসের সঙ্গে সঙ্গে তিনি যে অনাদি, অনন্ত, চিরঞ্জীব তা স্বীকার করা। তার সিফাত অর্থাৎ মহৎ গুণাবলি স্বীকার করা এবং তিনি যে এক, অদ্বিতীয়, সর্বশক্তিমান ও দয়াময় এটাও স্বীকার করা এবং তিনি ব্যতীত অন্য কেউ এবাদতের যোগ্য নয় একথা বিশ্বাস করা।

২- সবই আল্লাহ তায়ালার সৃষ্ট এর ওপর ঈমান রাখা
প্রত্যেক মুসলমানকে এ বিষয়ে অকাট্য বিশ্বাস ও ঈমান রাখতে হবে যে, ভাল-মন্দ ছোট বড় সমস্ত বিষয় ও বস্তুর সৃষ্টিকর্তা একমাত্র আল্লাহ তায়ালা। সৃষ্টিকর্তা হিসেবে একমাত্র আল্লাহ ব্যতীত অন্য কেউ নেই।

৩- ফেরেশতা সম্পর্কে ঈমান রাখা
ফেরেশতাগণ নিস্পাপ, তারা আল্লাহর প্রিয় ও ফরমাবরদার বান্দা। কোন কাজেই তারা বিন্দুমাত্র নাফরমানি করে না এবং  তাঁদের আল্লাহপ্রদত্ত ক্ষমতাও Read the rest of this entry

%d bloggers like this: